বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০ | ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবি, শিশুসহ ৪৫ অভিবাসীর মৃত্যু



ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে পাঁচ শিশুসহ ৪৫ জন অভিবাসন প্রত্যাশীর মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ। এ সপ্তাহের শুরুতে লিবিয়া উপকূলে এ মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে।

আলজাজিরা জানায়, বুধবার জাতিসংঘের অভিবাসন সংস্থা (আইওএম) এবং শরণার্থীবিষয়ক সংস্থা (ইউএনএইচসিআর) এক যৌথ বিবৃতিতে বিষয়টি নিশ্চিত করে।

সোমবার লিবিয়ার যাওয়ারা উপকূলের এ ঘটনায় প্রাণহানি হয় অন্তত ৪৫ জনের, যার মধ্যে পাঁচজন শিশু। জীবিত উদ্ধার করা হয় নৌকাটির ৩৭ জন আরোহীকে।

উদ্ধারকৃতরা জানান, ইঞ্জিন বিস্ফোরিত হয়ে নৌকাটি সমুদ্রে ডুবে যায়। স্থানীয় জেলেরা তাদের উদ্ধার করেন।

জাতিসংঘের সংস্থা দু’টি জানায়, উদ্ধারকৃতরা অধিকাংশই সেনেগাল, মালি, চাদ এবং ঘানার নাগরিক। এসব অভিবাসী প্রত্যাশীদের আটক করা হয়েছে।

এ ঘটনায় উদ্ধার কার্যক্রমে ভূমধ্যসাগরীয় দেশগুলোর প্রচেষ্টা পর্যালোচনা করে দেখে আইওএম ও ইউএনএইচসিআর।

লিবিয়ায় আইওএম মিশনের প্রধান ফেডেরিকো সোডা জানান, ইউরোপীয় ইউনিয়নের অনুসন্ধান ও উদ্ধার কর্মসূচির কোনো উপস্থিতি দেখা যায়নি।

ভূমধ্যসাগরীয় দেশগুলোকে উদ্দেশ্যে করে তিনি বলেন, অনুসন্ধান ও উদ্ধার কার্যক্রম বৃদ্ধি করা না হলে আরও বেশি বিপর্যয়ের ঝুঁকি রয়েছে।

আইওএম জানায়, সর্বশেষ ঘটনাসহ চলতি বছরে ভূমধ্যসাগরে নৌকাডুবিতে ৩০২ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। ২০১৪ সাল থেকে এখন পর্যন্ত মৃত্যুর শিকার হয়েছে অন্তত ২০ হাজার জন।